বুধবার, মে ২৭, ২০২০

অ্যাপথাস আলসার

অ্যাপথাস আলসার

image_pdfimage_print

 

 

অ্যাপথাস আলসার হয়নি এমন মানুষ একেবারেই বিরল । খুব পরিচিত এই সমস্যা। মুখে যত রকমের আলসার  হয় অ্যাপথাস আলসার তাদের মধ্যে সবচেয়ে বেশি হয় ।গালের নরম অংশে, জিহ্বার পাশে, ঠোঁটের ভেতরে  এবং  মাড়িতে বেশি হয়।

 

অ্যাপথাস আলসারের  সঠিক কোনো কারণ আজও পাওয়া যায়নি। তবে দুশ্চিন্তা, মানসিক অবসাদ, উদ্বিগ্নতা যাদের বেশি তাদের এই আলসার বেশি হয়।  বংশগতভাবে অনেক সময় অ্যাপথাস আলসার হয়ে থাকে।
বিভিন্ন ইনফেকশন এবং ভিটামিনের অভাবেও দেখা দিতে পারে অ্যাপথাস আলসার । মেয়েদের মাসিকের আগে এবং হরমোনের বিভিন্ন সমস্যার কারনেও দেখা দেয় আলসার।

অ্যাপথাস আলসারের ক্ষত বেশি বড় হয়না।  এই আলসারের  ভেতরের অংশ  সাদা বর্ণের এবং বাইরে লাল রঙের হয়ে থাকে থাকে। এই আলসার সাধারণত ৭  থেকে ১০ দিনের মধ্যেই ভালো হয়ে যায়। তবে  এই সমস্যায় প্রচণ্ড ব্যথা হয়। রোগী খেতে পারে না। মুখের ভেতর খুব অস্বস্তি হয়।
অ্যাপথাস আলসার নিজে নিজেই সেরে যায়। এক সপ্তাহের মধ্যেই বেশিরভাগ ভালো হয়ে যায়। তবে  কিছু চিকিৎসা আছে যা করলে রোগী আরাম পায়।অ্যাপথাস আলসার বিপদজনক কোন রোগ নয়। তাই এরকম হলে ভয় পাওয়ার কোন কারণ নেই।

FavoriteLoadingপ্রিয় পোস্টের তালিকায় নিন।

About The Author

মন্তব্য করুন