বৃহস্পতিবার, ডিসেম্বর ১২, ২০১৯

হার্ট অ্যাটাকের পরে……

হার্ট অ্যাটাকের পরে……

image_pdfimage_print

হার্ট অ্যাটাকে থেকে সেরে ওঠার পর একজন মানুষ বাড়িতে ফিরে একটু একটু করে কাজের মাত্রা বাড়াতে বাড়াতে এক থেকে দেড়মাসের মাথায় অ্যাটাক-পূর্ববর্তী কাজকর্ম বা পেশায় ফিরে যাবেন এমনটাই হওয়া বাঞ্ছনীয়। খুব মৃদু হার্ট অ্যাটাক হলে দু-তিন সপ্তাহ ছুটি নিয়েই কাজে ফিরতে পারবেন রোগী। অ্যাটাক খুব তীব্র হলে (অনেকটা জায়গায় ইনফার্কশনে যেমন হয়), খুব বেশি জটিলতা দেখা দিলে অথবা হৃদস্পন্দনের অনিয়ম [ Irregular Heart Beat] থেকে গেলে অবশ্য দেড়মাস বা তারও বেশি সময় লাগে এরকম রোগীর স্বাভাবিক কজকর্মে ফিরতে।

কখন পেশাগত কাজে ফিরবেন হার্ট অ্যাটাকের রোগী সে- ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেবেন বিশেষজ্ঞ চিকিৎসক, রোগী বা তার বাড়ির লোকজন নন। এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত চিকিৎসকরা নেন বিশেষ কিছু তথ্যের ওপর নির্ভর করে।

এগুলো হলঃ

  • কতটা হৃদপেশির মৃত্যু ঘটেছে।
  • কত তাড়াতাড়ি সেরে উঠেছেন রোগী।
  • হার্ট অ্যাটাকের ঠিক পরে বা পরবর্তী সময়ে কোনও হৃদ জটিলতা বা অন্য জটিলতা দেখা দিয়েছে কি না।
  • রোগীর এর আগে কখনও হার্ট অ্যাটাক হয়েছে কিনা।
  • হার্ট অ্যাটাকের আগে, চলাকালীন আর পএ যেসব ঝুঁকি হার্টের পক্ষে ক্ষতিকর সেগুলো কতটা আর কীভাবে রয়েছে [ যেমন বেশি রক্তচাপ, রক্তে বেশি সুগার বা কোলেস্টেরল, বেশি ওজন, বেশি বয়স ইত্যাদি]।
  • পেশার ধরন কীর।
  • এতে কতটা শারীরিক পরিশ্রম হয়।
  • রোগীর মানসিক অবস্থা কীরকম অবস্থায় রয়েছে ইত্যাদি।

অর্থনীতি যে কোনও মানুষের বেচে থাকার গুরুত্বপূর্ণ একটা স্তম্ভ। হার্ট অ্যাটাকের রোগী যত তাড়াতাড়ি কাজে ফিরবেন অ্যাটাকের ফলে দেখা দেওয়া অর্থনৈতিক নিরাপত্তার অভাববোধ তত কমবে। কমবে মানসিক চাপ। যেসব পেশায় খুব বেশি খাটনির কাজের বদলে হালকা কাজ চাইতে পারেন, চাইতে পারেন অল্প সময়ের আংশিক কাজ। নিয়োগকর্তাকে এ ব্যাপারে বোঝানোর দায়িত্ব শুধু রোগীর নয়, তার দায়িত্বশীল নিকটজনেরও।

দেখতে হবে কোনও অবস্থাতেই যেন হার্ট অ্যাটাকের রোগী কাজ হারিয়ে বেকার না হয়ে যান। এরকম হলে তার ওপর যে মানসিক আর অর্থনৈতিক চাপ পড়বে তা সুস্থভাবে দীর্ঘকাল বেঁচে থাকার পথে সমস্যা তৈরি করতে পারে যখন তখন।

[তথ্যসুত্রঃ ইন্টারনেট]

FavoriteLoadingপ্রিয় পোস্টের তালিকায় নিন।

About The Author

মন্তব্য করুন